January 18, 2021 3:13 am
Breaking News
Home / Home / সিলেটের এক মুক্তিযুদ্ধার ভিটেমাটি জবরদখল এর অভিযোগ,যথাযথ কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ

সিলেটের এক মুক্তিযুদ্ধার ভিটেমাটি জবরদখল এর অভিযোগ,যথাযথ কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ

মো.আজির উদ্দিন/ইসমাঈল আলী টিপু ::সিলেটের দক্ষিণ সুরমা উপজেলার মোগলাবাজার থানার ৫নং সিলাম ইউনিয়নের ১ নং ওয়ার্ড এর সিলাম মোহাম্মদপুর গ্রামের বীর মুক্তিযোদ্ধা ও অবসরপ্রাপ্ত সেনা সদস্য মো.নুর মিয়ার পৈত্রিক বসতবাড়ি ও মোট ৭৬ শতক জায়গা জবরদখল করে রেখেছে প্রতিপক্ষরা।

একই গ্রামের প্রতিবেশী আব্দুর রফিক এর পুত্র সমুজ মিয়া(৪০),দুদু মিয়া(৫৫) ও তারই পুত্র রুবেল(২৫),মৃত হান্নান মিয়ার পুত্র টিপু(৩০) দীর্ঘদিন যাবৎ জবরদখল ও আত্মসাৎ এর লক্ষ্যে বিভিন্নভাবে অপচেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।

এর প্রতিবাদে বিভিন্ন সময়ে সুশীল সমাজ ও এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ তীব্র প্রতিবাদ ও সভা-সেমিনার এর মাধ্যমে জোরালো প্রতিবাদ করেন।

এই বিষয়ে ৮ জানুয়ারি শুক্রবার বিকেলে সিলাম মোহাম্মদপুরে স্হানীয় মুরব্বিয়ানদের এক জরুরি সভা অনুস্টিত হয়।এতে উপস্হিত থেকে বক্তব্য রাখেন-সিলাম মোহাম্মদপুর কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের সেক্রেটারি সৈয়দ ফরহাদ হোসেন,সদস্য লিলু মিয়া,১নং ওয়ার্ড মেম্বার আব্দুল হান্নান,বিশিষ্ট মুরব্বি লইলু মিয়া,আব্দুল ওয়াহাব,আনা মিয়া,হাজী মো.ইলাছ মিয়া,খলকু মিয়া,মানিক মিয়া,সেলিম মিয়া,সুরুজ মিয়া,বেলাল আহমদ এবং বীর মুক্তিযোদ্ধা মো.নুর মিয়া ও তাঁর সহধর্মিণী আমিনা বেগম,মুক্তিযোদ্বার সন্তান আল আমিন প্রমুখ।

মুরব্বিয়ানরা বক্তব্যে বলেন-একটি কুচক্রী মহলের ইন্দনে প্রতিবেশী দুদু মিয়া গংরা দীর্ঘদিন যাবত বীর মুক্তিযোদ্ধা নুর মিয়া ও তাঁর পরিবার পরিজনদের হয়রানিসহ বিভিন্নরকম সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড চালিয়ে যাচ্ছে,এতে এলাকাবাসী প্রতিবাদ সহ এর বিরুদ্ধে ব্যবস্হা নেয়ার পরও তারা থেমে থাকেনা,একের পর এক ঝামেলা চালিয়ে যাচ্ছে।প্রশাসন এবং সরকারের কর্তৃপক্ষের নিকট আমরা মুক্তি যোদ্ধার পরিবারের সুরক্ষা সহ আইনী সহযোগিতা কামনা করছি।

মুক্তি যোদ্ধা নুর মিয়া বলেন-সরকারের পক্ষ থেকে আমাকে একটি গৃহ তৈরি করে দেওয়ার প্রস্তুতি হলে প্রতিপক্ষরা আমার গৃহটি নির্মাণ করতে একের পর এক দাঙ্গা হাঙ্গামা সহ বাঁধা সৃস্টি করে যাচ্ছে।আমার ভিটা মাটি এবং সর্বমোট ৭৬ শতক জায়গা প্রভাবশালীরা দখলের অপচেষ্টায় নিয়োজিত।এতে আমি বারবার বাঁধা দিয়ে কিছু করতে না পারায় আমি মানসিক ভাবে ভেংগে পড়ছি।আমার দলিলপত্র সহ যাবতীয় কাগজাদিও সটিক থাকার পরও বিভিন্নভাবে হয়রানিসহ জাল-জালিয়াতির আশ্রয় নিয়েছে প্রতিপক্ষরা।এতে তারা আইন কানুনের তোয়াক্কা করে না এবং এলাকার মুরব্বিয়ানদের কথাও শুনেনা।

মুক্তি যোদ্ধার সন্তান আল-আমিন বলেন-ছোটবেলা পরিবার পরিজন নিয়ে আমরা আমাদের নানাবাড়ি চলে যাই এবং সেখানে বসবাস করতে থাকি।এই সুযোগে প্রতিপক্ষরা একা পেয়ে ভিটে মাটিসহ জায়গাজমি জবরদখল করা সহ আত্মসাৎ এর ষড়যন্ত্র চালিয়ে যেতে থাকে।আমরা আমাদের পৈত্রিক বসতবাড়ি,জায়গাজমি জবরদখল মুক্ত চাই।এতে যথাযথ কর্তৃপক্ষের নিকট অনুরোধ,আমাদের এই বিষয়ে আইনী পদক্ষেপ গ্রহণ সহ ন্যায় বিচার কামনা করছি।

About sylhet24express

Check Also

সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির যুগান্তকারী সিদ্ধান্ত সাধারণ সম্পাদক পদে ২ জনকেই বিজয়ী ঘোষনা,অভিনন্দন…

নূরুদ্দীন রাসেল ::সকল জল্পনাকল্পনার অবসান ঘটিয়ে শেষ পর্যন্ত সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির ২০২১ সনের নির্বাচনে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *