July 11, 2020 4:16 am
Breaking News
Home / Home / রাস্তায় দাঁড়িয়ে কেঁদেছিলেন তামিম
ছবি সংগৃহীত তামিম
ছবি সংগৃহীত

রাস্তায় দাঁড়িয়ে কেঁদেছিলেন তামিম

ছবি সংগৃহীত তামিম
ছবি সংগৃহীত

ক্রীড়া ডেস্ক : বলা হয় গত এক যুগ ধরেই দেশের ক্রিকেটের ইতিহাসে সর্বকালের সেরা ওপেনার তিনি। তিন ফরম্যাটেই সর্বোচ্চ রানের ইনিংসটা এসেছে সেই তামিম ইকবালেরই ব্যাট থেকে। তবে দেশসেরা এ ওপেনারের ক্যারিয়ারে রয়েছে অনেক অজানা হতাশার গল্প।

শনিবার (০৬ জুন) রাতে তেমনই হতাশার গল্প সবাইকে জানিয়েছেন তামিম। ক্যারিয়ার শুরুর আগে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে কোনো দলের সঙ্গে চুক্তি না করতে পারার হতাশায় রাজধানীর ইস্টার্ন প্লাজার সামনের রাস্তায় দাঁড়িয়ে কেঁদেছিলেন দেশসেরা এ ওপেনার। যদিও পরে তখনকার সময়ের নামি ক্লাব ওল্ড ডিওএইচএসের হয়ে সুযোগ পেয়ে যান তিনি।

ক্রিকেটভিত্তিক ওয়েবসাইট ক্রিকফ্রেঞ্জির সঙ্গে এক লাইভ সেশনে তামিম বলেছেন, ‘তখন প্রিমিয়ার লিগে দল পেতে হলে সাইনিং করতে হতো। সাইনিং করতে না পারলে ঐ ক্রিকেটার আর সে বছর খেলতে পারত না। তো প্রিমিয়ার লিগের আগে মাত্র একদিন সময় পেয়েছিলাম আমরা। কেননা আমাদের স্কটল্যান্ড থেকে আসা একটি দলের সঙ্গে ম্যাচ ছিল চট্টগ্রামে। আমার ভাই (নাফিস ইকবাল) একটি দলে সাইনিং করে চলে গেছে। আমাকে বলল তুইও যোগাযোগ কর।’

তিনি বলতে থাকেন, ‘আমরা ৫-৬ জন একটা মাইক্রোতে উঠলাম, সাইনিং করতে যাওয়ার জন্য। ইস্টার্ন প্লাজার সামনে ওরা আমাকে মাইক্রো থেকে নামিয়ে দেয়। আমি জিজ্ঞাস করলাম, কেন নামিয়ে দিচ্ছেন? ওরা বলল বিসিবির কোনও এক কর্মকর্তার সঙ্গে যোগাযোগ করতে। আমি ভাইকে ফোন দেই তখন। নাফিস ভাইয়া বলে, ওরা তোকে দলে নেবে না হয়তো। আমি তখন রাস্তায় ঐ জায়গায় দাঁড়িয়ে কান্না করি। পুরোপুরি কান্না চলে আসে আমার।’

পরে তখনকার তারকা ক্রিকেটার খালেদ মাহমুদ সুজনের মাধ্যমে ওল্ড ডিওএইচএসে খেলার সুযোগ পান তামিম। আর সেখানেই বাজিমাত করে ঢুকে যান আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে। এরপরের বাকি গল্প তো সবারই জানা।

About sylhet24express

Check Also

করোনা

সিলেট জেলায় আরও ৪১ জনের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত

সিলেট অফিস : সিলেট জেলায় নতুন করে আরও ৪১ জনের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। (শুক্রবার) …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *