September 30, 2020 1:53 am
Breaking News
Home / শিক্ষা / ঢাবিতে ছাত্রদলের দুপক্ষের হাতাহাতি

ঢাবিতে ছাত্রদলের দুপক্ষের হাতাহাতি

অনলাইন ডেস্ক : ‘স্লোগান দেওয়া, না-দেওয়া’কে কেন্দ্র করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রদলের দুপক্ষের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে। বৃস্পতিবার দুপুর বারোটার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসিতে এই ঘটনা ঘটে।

ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন শ্যামলের অনুসারী ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শাখার আহ্বায়ক রাকিবুল ইসলাম রাকিবের অনুসারীদের মধ্যে এই হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে বলে জানা গেছে।

ছাত্রদল সূত্রে জানা যায়, বেশ কিছুদিন ধরে স্লোগান দেওয়া না-দেওয়াকে কেন্দ্র করে অভ্যন্তরিন ঝামেলা ছিল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় আহ্বায়ক কমিটি ও কেন্দ্রীয় কমিটির মধ্যে। বৃহস্পতিবার দুপুরে মধুর ক্যান্টিন থেকে খালেদা জিয়ার মুক্তির মিছিল নিয়ে রাজুর ভাস্কর্যের সামনে আসার পরে ইকবাল হোসেন শ্যামলের একজন অনুসারী স্লোগান দিলে বিশ্ববিদ্যালয় আহ্বায়ক রাকিব তাদের স্লোগান বন্ধ করতে বলেন। এসময় রাকিবের ‘কথা না শুনে’ তারা স্লোগান দিতে থাকে। একপর্যায়ে ক্ষেপে যান রাকিব। পরে তিনি এজন্য ইকবাল হোসেন শ্যামলের সাথে তর্কে জড়িয়ে পড়েন।

সূত্র জানায়, রাজু ভাস্কর্যে কর্মসূচি শেষে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় পায়রা চত্বরে ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা অবস্থান নিলে সেখানে দাঁড়ানোকে কেন্দ্র করে ডাকসু নির্বাচনে জিয়া হল সংসদের ভিপি প্রার্থী তারেক হাসান মামুনের সাথে তর্কে জড়িয়ে পড়েন বিশ্ববিদ্যালয় আহ্বায়ক রাকিব। একপর্যায়ে তাকে অশালীন ভাষায় গালি দিয়ে গালে থাপ্পর এবং তাকে মেরে ফেলার হুমকি দেন। এসময় আহ্বায়কের থাপ্পর নিয়ে নেতাকর্মীরা প্রতিবাদ জানাতে চাইলে বিশ্ববিদ্যালয় আহ্বায়ক রাকিবের অনুসারী ও কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন শ্যামলের অনুসারীদের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে।

পরে তারেক হাসান মামুন কেন্দ্রীয় সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের কাছে এ বিষয়ে অভিযোগ করেন। তখন কেন্দ্রীয় সভাপতি সাধারণ সম্পাদক বিষয়টি পরে দেখবেন বলে জানান। তার কিছুক্ষণ পরে, রাকিবুল হাসান রাকিব কেন্দ্রীয় সভাপতি সাধারণ সম্পাদকের কাছে তারেক হাসান মাসুদের বিরুদ্ধে অভিযোগ করেন।

অভিযোগ করার সময়ে কেন্দ্রীয় যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক তবিবুর রহমান সাগর বলেন, সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক বলেছে বিষয়টি পরে দেখবে।

তখন বিশ্ববিদ্যালয় আহ্বায়ক রাকিবুল ইসলাম রাকিব বলেন, আমি বিশ্ববিদ্যালয় সভাপতি সাধারণ সম্পাদক সাথে কথা বলছি, ‘তুই বেটা থাম’।

পরে এ নিয়ে সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন শ্যামলের অনুসারী ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের রাকিবুল হাসান রাকিবের অনুসারীদের মধ্যে হট্টগোলের সৃষ্টি হয়।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক ছাত্রদল নেতা জানান, সামান্য বিষয় নিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রদলের আহ্বায়ক রাকিবুল ইসলাম রাকিব কেন্দ্রীয় সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের সাথে খুবই খারাপ আচরণ করেছেন।

এ বিষয়ে জিয়া হল সংসদ নির্বাচনের ভিপি প্রার্থী তারেক হাসান মামুন কোন মন্তব্য করতে রাজি হননি।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রদলের আহ্বায়ক রাকিবুল ইসলাম রাকিব বলেন, এটা আমাদের ইন্টার্নাল বিষয়। সামান্য কথার কাটাকাটি হয়েছে। তেমন কিছু নয়।

মেরে ফেলার হুমকি বিষয়ে তিনি বলেন, আমি কাউকে মেরে ফেলার হুমকি দেইনি।

ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোসেন শ্যামলকে ফোন করা হলে তিনি ফোন রিসিভ করেননি।

About sylhet24express

Check Also

এমসি কলেজের হোস্টেল ছাড়ার নির্দেশ

নিউজ ডেস্ক :: এমসি কলেজের হোস্টেলে এক তরুণীকে গণধর্ষণের ঘটনায় পরপর সকল ছাত্রকে হোস্টেল ছাড়ার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *