Wednesday , November 20 2019
Home / বরিশাল / গাভা রামচন্দ্রপুর ইউনিয়ন চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে দুদকের তদন্ত

গাভা রামচন্দ্রপুর ইউনিয়ন চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে দুদকের তদন্ত

Print Friendly, PDF & Email

ঝালকাঠি

ঝালকাঠি প্রতিনিধি : ঝালকাঠি সদর উপজেলার গাভারামচন্দ্রপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান গোলাম মাওলা মাসুম শেরওয়ানীর বিরুদ্ধে দুদকের তদন্ত শুরু হয়েছে। গোলাম মাওলা মাসুম শেরওয়ানী বিরুদ্ধে এ বছর ১৭ জুন ঐ ইউনিয়নের ৭ জন ওয়ার্ড ইউপি সদস্য মোঃ শহিদুল ইসলাম, মোঃ হাবিবুর রহমান, মোঃ মানিক মিয়া, মোঃ মিনরুজ্জামান চুন্নু, মোঃ বসির, মোঃ সাগর মাঝি ও মোঃ শাহাজাহান সম্মিলিতভাবে প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ প্রকল্পের ১০ টাকা কেজি চাল সরকারী বিধিবিধান মোতাবেক বিতরণ না করিয়া আত্মসাৎ করার প্রতিকার প্রার্থনা করে ঝালকাঠি সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবর লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

তারা অভিযোগ উল্লেখ করেন, গাভা রামচন্দ্রপুর ইউিনয়েনর চেয়ারম্যান ক্ষমতার জোরে প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ প্রকল্প খাদ্য বান্ধব কর্মসুচীর ১০ টাকা কেজি চাল সরকারী বিধিবিধান মোতাবেক বিতরণ না করে নিয়ম-নীতি অমান্য করিয়া আত্মসাৎ করে। ইউনিয়ন পরিষদে মিটিং না করিয়া মূল কার্ডধারী ব্যক্তিদের নাম বাদ দিয়া চেয়ারম্যানের পোষা লাঠিয়াল বাহিনী দ্বারা এলাকার নিরীহ লোকদের সাথে প্রতারণার মাধ্যমে টাকার বিনিময়ে কার্ড বিক্রয় করিয়া অবৈধভাবে লাভবান হইতেছে। দূর্নীতি দমন কমিশন,বরিশাল বরাবর উক্ত আবেদনের অনুলিপি দেয়া হলে দুদক উপ পরিচালক মোঃ তালেবুর রহমান ঝালকাঠি জেলা প্রশাসক বরাবর বিষয়িট তদন্তদের জন্য পত্র প্রেরণ করেন।

এ বিষয়ে ঝালকাঠি জেলা প্রশাসক জোহর আলী এর নিকট মুঠো ফোনে জানতে চাইলে এ প্রতিবেদককে তিনি জানান, “বিষয়টি তদন্ততের জন্য তদন্তকারী কর্মকর্তা নিয়োগ করা হচ্ছে।” এদিকে অভিযোগকারীরা জানান, চেয়ারম্যান গোলাম মাওলা মাসুম শেরওয়ানী প্রভাবশালী হওয়ায় তদন্তে বিলম্ব হচ্ছে। আদৌ তদন্ত হবে কিনা তা নিয়ে সন্দিহানে আছেন বলে জানান অভিযোগকারী সদস্যরা। গাভারামচন্দ্রপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান গোলাম মাওলা মাসুম শেরওয়ানী সাংবাদিকদের জানান তার বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ সত্য নয়।

About admin

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *