loading...
Home / হাত বাড়িয়ে দাও / হাড় সুস্থ রাখতে ৭ খাবার

হাড় সুস্থ রাখতে ৭ খাবার

অনলাইন ডেস্ক : দেহের কাঠামো তৈরি হয় হাড়ের মাধ্যমে। দেহের আকৃতি ধরে রেখে সঠিক পরিচালনার জন্য হাড়ের গুরুত্ব অনেক। অথচ এই হাড়কে আমরা তেমন গুরুত্ব দেই না। দেহের সুস্থতার জন্য আমরা অনেক কাজ করি, অনেক ধরণের খাবার খাই। কিন্তু হাড়ের যত্ন তেমনভাবে নেওয়া হয় না। আর এই অযতেত্নর কারণে অল্প বয়সে হাঁটু ব্যথা, পা ব্যথাসহ অস্টিওপোরোসিস রোগ দেখা দেয়।

হাড়কে সুস্থ রাখবে এমন কিছু খাবারে তালিকা নিয়ে আজকের আয়োজন:
১। টক দই
হাড় মজবুত করতে ভিটামিন ডি এবং ক্যালসিয়ামের ভ‚মিকা অপরসীম। টক দই ভিটামিন ‘ডি’ এর অন্যতম উৎস। তাছাড়া ক্যালসিয়ামের চাহিদা পূরণ করে হাড়কে করে আরও মজবুত করে। এটি অস্টিওপোরোসিস রোগ প্রতিরোধ করে থাকে।
২। দুধ
দুধ ক্যালসিয়ামের অন্যতম উৎস। যা খুব সহজে আমাদের দেহ হজম করে পুষ্টি গ্রহণ করতে পারে। শুধু ছোটরা নয়, বড়দেরও নিয়মিত দুধ পান করা উচিত।
৩। চিজ
ক্যালসিয়ামের অন্যতম আরেকটি উৎস হল চিজ বা পনির। ১.৫ আউন্স চিজ প্রতিদিনের ৩০% ক্যালসিয়ামের চাহিদা পূরণ করে। এতে অল্প পরিমাণের ভিটামিন ‘ডি’ও রয়েছে। তবে অতিরিক্ত পরিমাণ চিজ খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর।
৪। ডিম
ডিমকে বলা হয় ‘সুপারফুড’। ডিমে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন এবং মিনারেলস। প্রোটিনের সব চাইতে ভালো উৎস হচ্ছে ডিম। তবে এতে মাত্র ৬% ভিটামিন ‘ডি’ রয়েছে। যা খুব সহজে দেহের পুষ্টির চাহিদা পূরণ করে। তাই হাড়ের সুস্থতায় প্রতিদিন একটি ডিম খাওয়ার অভ্যাস করুন।
৫। কাঠবাদাম
এক কাপ কাঠাবাদামে ১৮% ক্যালসিয়াম থাকে। এটি হাড় মজবুত করার পাশাপাশি ওজন কমাতে করতে সাহায্য করে। প্রতিদিন কয়েকটি কাঠবাদাম খাওয়ার চেষ্টা করুন।
৬। স্যামন
স্যামন মাছে প্রচুর পরিমাণ ক্যালসিয়াম রয়েছে। ৩ আউন্স স্যামন মাছে ১৮১ গ্রাম ক্যালসিয়াম রয়েছে, যা হাড় এবং হৃদযন্ত্র সুস্থ রাখে।
৭। পালং শাক
এক কাপ রান্না করা পালং শাকে ২৫% ক্যালসিয়াম , ফাইবার, আয়রন এবং ভিটামিন ‘এ’ রয়েছে। যা প্রতিদিনের ক্যালসিয়ামের চাহিদা পূরণ করে থাকে।
উপরে উলে­খিত সাতটি খাবার এছাড়াও সবুজ শাক-সবজি, কমলার রস, ব্রকলি ইত্যাদি খাবার হাড় সুস্থ রাখতে সাহায্য করে।

Loading...
loading...

ভিডিওটি দেখতে নিচে ক্লিক করুন



Loading...

About admin

Check Also

আরাফাত জানতে চায়, আমি কি মরে যাব?

অনলাইন ডেস্ক : যে সময় খেলার সাথিদের নিয়ে বাড়ি মাতিয়ে রাখার কথা, ঠিক সে সময়ে বিছানায় …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *